ঢাকা, রবিবার ১৪ই এপ্রিল ২০২৪ , বাংলা - 

পাকিস্তানে ক্ষমতা ভাগাভাগি চূড়ান্ত!

আর্ন্তজাতিক রিপোটার।। ঢাকাপ্রেস২৪.কম

2024-02-22, 12.00 AM
পাকিস্তানে ক্ষমতা ভাগাভাগি চূড়ান্ত!

বিগত কয়েক দিনের টালমাটাল অবস্থা কি এ বার কাটিয়ে ফেলবে পাকিস্তান? নির্বাচন মিটলেও কুর্সির দখল নিয়ে চলছিল টানাপড়েন। অবশেষে পর্দা সরল সেই জল্পনার উপর থেকে।মঙ্গলবার রাতে বেনজির-পুত্রের আয়োজিত সাংবাদিক বৈঠকেই পরিষ্কার হয়ে গিয়েছিল সেই বার্তা। এ দিন পিপিপি চেয়ারম্যান বিলাবল ভুট্টো জ়ারদারি ঘোষণা করেন, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হতে চলেছেন শাহবাজ় শরিফ। আর প্রেসিডেন্ট হবেন আসিফ আলি জ়ারদারি।গাঁটছড়া চূড়ান্ত পাকিস্তানে। নওয়া়জ় শরিফের পিএমএল-এনের সঙ্গে হাতে হাত মিলিয়ে জোট সরকার গড়তে চলেছে পিপিপি।মঙ্গলবার রাতে এক পাশে শাহবাজ এবং অন্য পাশে বাবা আসিফ জ়ারদারিকে নিয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন বিলাবল। সেখানেই তিনি পিএমএল-এনকে সমর্থনের কথা জানিয়ে দেন।পাশাপাশি, জানানো হয়, প্রধানমন্ত্রী হবেন শাহবা়জ় আর প্রেসি়ডেন্ট আসিফ জ়ারদারি।শাহবাজের দল আসিফ জ়ারদারিকে প্রেসিডেন্ট পদে সেখানেই সমর্থন জানিয়ে দেন। ঠিক যেমন বিলাবল শাহবাজকেই প্রধানমন্ত্রী মেনে নেন।বিলাবল বলেন, ‘‘পিপিপি এবং পিএমএল-এন প্রয়োজনীয় সংখ্যা জোগাড় করে ফেলেছে। এখন আমরা সরকার তৈরির জায়গায় পৌঁছে গিয়েছি।’’এ কথায় সায় দেন পাশে বসে থাকা শাহবাজ়ও। হবু প্রধানমন্ত্রী দাবি করেন, ইমরানের পিটিআই এবং সুন্নি ইত্তেহাদ কাউন্সিল প্রয়োজনীয় সংখ্যায় পৌঁছতে পারেনি, কিন্তু তাঁরা পৌঁছে গিয়েছেন।গত ৮ ফেব্রুয়ারি পাকিস্তানে ভোটের ফল প্রকাশ হয়।তাতে দেখা যায়, পিএমএল-এন জিতেছে ৭৫টি আসন, পিপিপি পেয়েছে ৫৪টি আসন।আর সবাইকে পিছনে ফেলে দিয়েছিলেন ইমরানের দল পিটিআই সমর্থিত নির্দল প্রার্থীরা। তাঁরা জিতেছিলেন মোট ৯৩টি আসনে।এই ফলের জেরে কোনও দলই একক ভাবে সরকার গড়ার মতো অবস্থায় ছিল না।কিন্তু মঙ্গলবার রাতে পরিষ্কার হয়ে গেল, পিপিপি এবং পিএমএল-এন জোট বেঁধে সরকার গড়তে চলেছে।এর পাশাপাশি মুত্তাহিদা কওমি মুভমেন্ট পাকিস্তান (এমকিউএম-পি) ১৭টি আসন নিয়ে জোটকে সমর্থনের কথা জানিয়ে দিয়েছে।ফলে ১৪৬ জন জয়ী সদস্যের সমর্থন নিয়ে পাকিস্তানের মসনদে বসতে চলেছেন শাহবাজ।পিটিআই এবং সুন্নি ইত্তেহাদ কাউন্সিল প্রয়োজনীয় সংখ্যায় পৌঁছতে পারেনি, কিন্তু তাঁরা পৌঁছে গিয়েছেন।