ঢাকা, মঙ্গলবার ২৫ই জুন ২০২৪ , বাংলা - 

শাবানাকে পর্দায় চুম্বনে হট্টগোল

ডেস্ক নিউজ।। ঢাকাপ্রেস২৪.কম

2023-08-05, 12.00 AM
শাবানাকে পর্দায় চুম্বনে হট্টগোল

গত ২৮ জুলাই মুক্তি পেয়েছে কর্ণ জোহর পরিচালিত ছবি ‘রকি অউর রানি কি প্রেম কহানি’। ছবিতে মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন আলিয়া ভট্ট ও রণবীর সিংহ। অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে ছিলেন ধর্মেন্দ্র, জয়া বচ্চন, শাবানা আজ়মি, বাঙালি অভিনেতা চূর্ণী গঙ্গোপাধ্যায় ও চোটা রায়চৌধুরী। ‘রকি অউর রানি...’ ছবিতে আলিয়া ও রণবীরের রসায়ন তো নজর কেড়েছে বটেই। পাশাপাশি, চোখে পড়েছে বর্ষীয়ান তারকা ধর্মেন্দ্র ও শাবানা আজ়মির সম্পর্কের সমীকরণও। পর্দায় তাঁদের চুম্বন নিয়েও কম আলোচনা হয়নি। ৮৭ বছর বয়সে এসে ক্যামেরার সামনে চুম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করেছেন ধর্মেন্দ্র। স্বামীকে পর্দায় এমন দৃশ্যে অভিনয় করতে দেখে কী বললেন স্ত্রী হেমা মালিনী?সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে বলিউডের ড্রিম গার্ল হেমা মালিনীকে প্রশ্ন করা হয় ধর্মেন্দ্র ও শাবানা অভিনীত এই দৃশ্যের বিষয়ে। প্রথমেই হেমার সাফ জবাব, তিনি এখনও ‘রকি অউর রানি...’ ছবিটি দেখেননি। তবে কি স্বামীর এই কাণ্ডের জেরেই ছবি না দেখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন হেমা? সেই প্রশ্নেরও উত্তরও হাসিমুখেই দিলেন তিনি। ড্রিম গার্লের কথায়, ‘‘আমার আসলে ছবির প্রিমিয়ারে যাওয়ার সময় হয়নি। তবে আমি সবার থেকে শুনেছি যে ছবিটা খুব ভাল হয়েছে। ধরমজিরও অনেক প্রশংসা শুনেছি। ওঁর জন্য ভীষণ আনন্দ হচ্ছে। ওঁ সব সময় ক্যামেরার সামনে থাকতে পছন্দ করেন। এই ছবিতে কাজ করে ওঁরও খুব ভাল লেগেছে।’’ হেমার মন্তব্য থেকেই স্পষ্ট, পেশাদারিত্বের সঙ্গে ব্যক্তিগত জীবনের সমীকরণকে গুলিয়ে ফেলতে রাজি নন তিনি।নিজেও এক জন পেশাদার অভিনেত্রী হেমা। তবে দীর্ঘ দিন যাবৎ তাঁকে দেখা যায়নি বড় পর্দায়। কবে ফিরবেন ক্যামেরার সামনে? প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে হেমা জানান, কেউ তাঁকে তাঁর জন্য উপযুক্ত চরিত্রের প্রস্তাব দিলেই তিনি রাজি। তবে ক্যামেরার সামনে ফেরার জন্য একটি নির্দিষ্ট শর্তও রেখেছেন হেমা। বর্ষীয়ান অভিনেত্রীর অনুরোধ, তাঁকে যেন নেতিবাচক কোনও চরিত্রের জন্য না ভাবা হয়। তাঁর কথায়, ‘‘আমি নিজে নেতিবাচক মানুষ নই। আমি কারও খারাপও ভাবি না। আমি খল চরিত্রে অভিনয় করব কী ভাবে!’’গত ২৮ জুলাই মুক্তি পেয়েছে কর্ণ জোহর পরিচালিত ছবি ‘রকি অউর রানি কি প্রেম কহানি’। ছবিতে মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন আলিয়া ভট্ট ও রণবীর সিংহ। অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে ছিলেন ধর্মেন্দ্র, জয়া বচ্চন, শাবানা আজ়মি, বাঙালি অভিনেতা চূর্ণী গঙ্গোপাধ্যায় ও চোটা রায়চৌধুরী। ‘রকি অউর রানি...’ ছবিতে আলিয়া ও রণবীরের রসায়ন তো নজর কেড়েছে বটেই। পাশাপাশি, চোখে পড়েছে বর্ষীয়ান তারকা ধর্মেন্দ্র ও শাবানা আজ়মির সম্পর্কের সমীকরণও। পর্দায় তাঁদের চুম্বন নিয়েও কম আলোচনা হয়নি। ৮৭ বছর বয়সে এসে ক্যামেরার সামনে চুম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করেছেন ধর্মেন্দ্র। স্বামীকে পর্দায় এমন দৃশ্যে অভিনয় করতে দেখে কী বললেন স্ত্রী হেমা মালিনী?সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে বলিউডের ড্রিম গার্ল হেমা মালিনীকে প্রশ্ন করা হয় ধর্মেন্দ্র ও শাবানা অভিনীত এই দৃশ্যের বিষয়ে। প্রথমেই হেমার সাফ জবাব, তিনি এখনও ‘রকি অউর রানি...’ ছবিটি দেখেননি। তবে কি স্বামীর এই কাণ্ডের জেরেই ছবি না দেখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন হেমা? সেই প্রশ্নেরও উত্তরও হাসিমুখেই দিলেন তিনি। ড্রিম গার্লের কথায়, ‘‘আমার আসলে ছবির প্রিমিয়ারে যাওয়ার সময় হয়নি। তবে আমি সবার থেকে শুনেছি যে ছবিটা খুব ভাল হয়েছে। ধরমজিরও অনেক প্রশংসা শুনেছি। ওঁর জন্য ভীষণ আনন্দ হচ্ছে। ওঁ সব সময় ক্যামেরার সামনে থাকতে পছন্দ করেন। এই ছবিতে কাজ করে ওঁরও খুব ভাল লেগেছে।’’ হেমার মন্তব্য থেকেই স্পষ্ট, পেশাদারিত্বের সঙ্গে ব্যক্তিগত জীবনের সমীকরণকে গুলিয়ে ফেলতে রাজি নন তিনি।নিজেও এক জন পেশাদার অভিনেত্রী হেমা। তবে দীর্ঘ দিন যাবৎ তাঁকে দেখা যায়নি বড় পর্দায়। কবে ফিরবেন ক্যামেরার সামনে? প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে হেমা জানান, কেউ তাঁকে তাঁর জন্য উপযুক্ত চরিত্রের প্রস্তাব দিলেই তিনি রাজি। তবে ক্যামেরার সামনে ফেরার জন্য একটি নির্দিষ্ট শর্তও রেখেছেন হেমা। বর্ষীয়ান অভিনেত্রীর অনুরোধ, তাঁকে যেন নেতিবাচক কোনও চরিত্রের জন্য না ভাবা হয়। তাঁর কথায়, ‘‘আমি নিজে নেতিবাচক মানুষ নই। আমি কারও খারাপও ভাবি না। আমি খল চরিত্রে অভিনয় করব কী ভাবে!’’